সোনার হরিণ ছুয়ে দেখা; বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে মুশফিকই যে প্রথম!

বাংলাদেশের ক্রিকেটে 'মিস্টার ডিপেন্ডেবল' খ্যাত মুশফিকুর রহিম, ৮ই মার্চ, ২০১৩ তারিখে শ্রীলঙ্কার গলে নিজ টেস্ট ক্যারিয়ারের ৩১ তম ম্যাচ খেলতে নামেন। তখন পর্যন্ত তার টেস্ট ক্যারিয়ার বলতে ১টি মাত্র সেঞ্চুরি। কে জানত এই মি. ডিপেন্ডেবলই হবেন বাংলাদেশের প্রথম ডাবল সেঞ্চুরিয়ান! স্যার ডন ব্রডম্যান একাই ১২টি ডাবল সেঞ্চুরি করেছিলেন। তাই টেস্ট ক্রিকেটে

সর্বকনিষ্ঠ টেস্ট সেঞ্চুরিয়ান আশরাফুল; স্বপ্ন যখন সত্যি হয়

বাংলাদেশের ক্রিকেটের 'লিটল মাষ্টার' খ্যাত মোহাম্মদ আশরাফুল, ৬ই সেপ্টেম্বর, ২০০১ তারিখে কলম্বোর সিংহলজি স্পোর্টস ক্লাব গ্রাউন্ডে ক্যারিয়ারের প্রথম টেস্ট খেলতে নেমেছিলেন। মাত্র ১৭ বছর বয়সে বাংলাদেশের ১৭তম টেস্ট ক্যাপ মাথায় পড়েছিলেন। আশরাফুলের অভিষেক হয়েছিল একজন লেগ স্পিনার হিসেবে। তখনও তাঁর চোখেমুখে লেগে ছিল শিশুসুলভ সারল্য। মাত্র ৫ফুট ২ ইঞ্চি লিকলিকে

রাইডার্সে থামলো টাইটান্সের জয়রথ

এবারের বিপিএলের একমাত্র বিস্ময় খুলনা টাইটানস। খেলা শুরুর আগে কেউ হিসাবেই রাখেনি দলটিকে। কিন্তু মাহমুদউল্লাহর দৃঢ়তায় রীতিমত বাজিমাত করেছে খুলনা। কিন্তু রংপুরের সামনে আসলেই যেন খেই হারিয়ে ফেলে দলটি। প্রথম দেখায় মাত্র ৪৪ রানেই অল আউট হয়। তাই আজকের ম্যাচে প্রতিশোধের নেশায় টস জিতে ব্যাটিং নেয় খুলনা। কিন্তু ব্যাটিংয়ে নেমে কোনো সুবিধাই করতে

শীর্ষস্থানের লড়াইয়ে আজ দুপুরে মাঠে নামছে রংপুর-খুলনা

আজ দুপুর ১টায় চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে মাঠে নামবে রংপুর রাইডার্স ও খুলনা টাইটান্স। সুপারস্টারদের ছড়াছড়ি না থাকলেও যে শিরোপা জেতা যায় সেটা আইপিএলে হায়দ্রাবাদ প্রমাণ করেছিলো। এবার বিপিএলেও সে পথেই হাটছে খুলনা টাইটান্স। সাদামাটা একটা দল নিয়েই একের পর এক ম্যাচ জিতে চলেছে খুলনা। ৬ ম্যাচে মাত্র একটা ম্যাচ

পথের দেখা মেলেনি কুমিল্লার, শক্ত অবস্থানে রংপুর

টানা প্রথম চার ম্যাচ হেরে টুর্নামেন্ট থেকে অনেকটা ছিটকে পড়েছিলো চ্যাম্পিয়নরা। তবুও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের একমাত্র ভরসা ছিল মাশরাফি। বারবার হোঁচট খেয়ে কিভাবে ঘুরে দাড়াতে হয় সেটা ভালোভাবেই জানা তার। আর তার হাতেই যখন কুমিল্লার দায়ভার তখন ঘুরে দাড়ানোর আশা সবাই করতে পারেন। কিন্তু সেই আশায় গুড়োবালি দিলো ফর্মের তুঙ্গে থাকা

আমিতো বাচ্চা নই যে নিজেকে প্রমাণ করতে হবে: নাসির

বাংলাদেশ ক্রিকেটে মিস্টার ফিনিশার হিসেবে খ্যাত নাসির হোসেন। কিন্তু গত বছর থেকেই সময়টা দারুণ খারাপ যাচ্ছে তার। ব্যাটে নিয়মিত রান করার পরও জাতীয় দলের প্রথম একাদশে জায়গা পাচ্ছেন না তিনি। একের পর এক ক্রিকেটারকে তার জায়গায় সুযোগ দেয়া হচ্ছে যেন নাসিরের বিকল্প খুজছেন নির্বাচকরা। কিন্তু বরাবরই ব্যর্থ তারা। তাইতো ইংল্যান্ড সিরিজের শেষ দুই

পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ঢাকা, তলানীতে কুমিল্লা!

বাংলাদেশের সবচেয়ে জমজমাট ক্রিকেট লীগ হচ্ছে বিপিএল। কিন্তু বৃষ্টির কারণে শুরুতেই বাধাগ্রস্ত হয় বিপিএলের ৪র্থ আসর। তাই ৪ নভেম্বর শুরু হওয়ার কথা থাকলেও ৮ই নভেম্বর থেকে আবার নতুন সূচীতে শুরু হয় এবারের আসর। এবারের আসরে ১ম পর্বে ঢাকাতে ১৩ টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। আর ১ম পর্ব শেষে কাগজে কলমে সবচেয়ে

কে জিতবে? বিসিবি নাকি নাফিস?

শাহরিয়ার নাফিস বাংলাদেশ ক্রিকেটের এক অবিচ্ছেদ্য অংশ।বাংলাদেশের ক্রিকেটের শুরুর দিকে আবির্ভাব হয়েছিল তার। ১৯৯৭ সালে বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট পথযাত্রা শুরু হলেও প্রথম ১০টি জয় পেতেই ৮ বছর লেগে যায়। আর তখনি আগমন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানের। তারপর থেকে বাংলাদেশের প্রত্যেকটি জয়ে ব্যাট হাতে ভূমিকা ছিলো তার। সেঞ্চুরীও করেছেন একের পর এক। ব্যাক

এবার রংপুর রাইডার্সে যোগ দিচ্ছে কিলার মিলার

বিপিএলের ৪র্থ আসরের হট ফেভারিট দল রংপুর রাইডার্স। আফ্রিদি-সৌম্যের মত দেশী বিদেশী ছোট বড় তারকাদের নিয়ে যথেষ্ট শক্তিশালী দল রংপুর। তাদের বোলিং লাইন আপ চোখে পড়ার মত। তবে পাকিস্তানের দুই ব্যাটসম্যান শারজিল খান ও বাবর আজম না আসায় বোলিংয়ের তুলনায় ব্যাটিং কিছুটা দুর্বল হয়ে পড়েছে রংপুরের। আর এই ব্যাটিংটাকে শক্তিশালী করার

সানির হাত ধরে টি-২০ তে বাংলাদেশের প্রথম বিশ্বরেকর্ড!

২.৪-২-০-৩! অনেকেরই বুঝতে অসুবিধা হতে পারে। ঘাবড়ানোর কোনো কারণ নেই বুঝিয়ে দিচ্ছি। ২.৪ ওভার বল করে ২টা মেডেন এবং কোনো রান না দিয়েই ৩ উইকেট! ভাবছেন এও কি সম্ভব? হ্যা, সম্ভব। আজকে (১০ নভেম্বর, ২০১৬) আরাফাত সানি বাংলাদেশের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি লীগে রংপুর রাইডার্সের হয়ে খুলনা টাইটান্সের বিপক্ষে সেটা করে দেখিয়েছেন। সাথে