পিছলে হাতে ফসকে যাওয়া টেস্ট!

বাংলাদেশ ভারতের হায়দ্রাবাদ টেস্টটা শুরুর আগে অনেক রোমাঞ্চ জাগালেও, ম্যাচটা ছিলো একপেশেই। শেষ পর্যন্ত ভারত ২০৮ রানে জয়ী, যেটা বিশাল ব্যাবধান। বাংলাদেশ যে লড়াই করেনি তা নয়, কিন্তু পিছলে হাত আর ব্যাটিং এ দায়িত্বহীনতায় টেস্টটা খোয়াতে হলো টাইগারদের। টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন ভারত অধিপতি ভিরাট কোহলি। প্রথম ওভারে তাসকিন

যেই টেস্টটা সাধারণ না

আসছে ৯ ফেব্রুয়ারি ভারতের হায়দ্রাবাদে হতে যাচ্ছে বহুল প্রতীক্ষিত ভারত বাংলাদেশ টেস্ট ম্যাচ, যেটা কোনভাবেই একটা সাধারণ ম্যাচ না। ২০১৫ থেকে পাকিস্তানের ব্যর্থতা আর শ্রীলংকার অধঃপতনে এশিয়ান ক্রিকেটে সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী এখন ভারত আর বাংলাদেশই, যদিও টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের ধারাবাহিকতাটা এখনও ঠিক আসেনি, অন্যদিকে ঘরের মাঠে বরাবরই অপ্রতিরোধ্য ভারত। যদিও এশিয়ান

স্কোরকার্ড ও রেকর্ড বইয়ের অন্তরালে

আচ্ছা খেলার উদ্দেশ্য কি? বিনোদনের বিষয়টা থাকার পরও, মুখ্য বিষয় সেই ফলাফলটাই; জয় নিয়েই মাঠ ছাড়তে চায় সবাই। কিন্তু সবসময়ই কি তাই? মাঝে মাঝে খেলাটা জয় পরাজয়ের সীমা ছাড়িয়ে যায়, আর তখনই খেলাগুলো জীবনের অংশ হয়ে যায়। ১৯৭৪ এর নেদারল্যান্ডস অথবা ১৯৫৪ এর হাঙ্গেরি, ১৯৯৬ এর শ্রীলংকা বা ১৯৮৩ এর ভারত, এদের

একজন দুর্ভাগা ফ্যানের গল্প!

স্মৃতির পাতাটা একটু উলটোই... ২০১৪ জিম্বাবুয়ে সিরিজ। শেষ ওয়ানডেতে একটা ব্যাটসম্যান এর অভিষেক, সৌম্য সরকার নাম। ভাবলাম সিরিজ জিতে গেছি তাই এক্সপেরিমেন্ট আর কি। চমকে গেলাম কিছুদিন পর, যখন বিশ্বকাপের দলে তার নাম দেখলাম। আজব তো! একটা ওয়ানডে খেলা একজনকে বিশ্বকাপে! ফাইজলামি নাকি! হার্ডহিটার নাকি, আচ্ছা চান্স তো পাইবোই না, হুদাই

সৌম্যের পুনর্জন্মলাভের সফর নাকি আবার হতাশা?

দার্শনিক মরমী লালন সাই এর একটা গান আছে "খাঁচার ভেতর অচীন পাখি কেমনে আসে যায়"! এই গানটা ক্রিকেটের ব্যাটসম্যান রা প্রায়ই নিজেদের সাথে তুলনা করতে পারেন, নিজেকে খাঁচা আর ফর্ম কে পাখি হিসেবে, কখন ফর্ম আসবে, কখন যাবে সেটা বোঝা যায় না, জানাও যায় না। ফর্ম নিয়ে কথা বলা শুরু

এই দিনে মনে পড়ে সেই দিন

২০১৬ বিপিএল টা শেষ হয়ে গেলো। চ্যাম্পিয়ন ঢাকা ডায়নামাইটস, রানার্সআপ রাজশাহী কিংস। টুর্নামেন্ট সেরা মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। পুরষ্কারটা ঘোষণার সাথে সাথেই আমার মনের স্মৃতির পাতা উল্টোনো শুরু, থামলো গিয়ে ২০১৪ তে। সেই বীভৎস ২০১৪ তে! জিম্বাবুয়ে সিরিজ শুরুর ঠিক আগে। ২০১৪ সালটা ভয়াবহ ছিলো বাংলাদেশ ক্রিকেটের জন্য। ঘরের মাঠে ভারত পাকিস্তান শ্রীলংকা

বিপিএল কেন আইপিএল না?

বিপিএল এবং আইপিএল দুটোই একই ধরণের দুটো টি২০ টুর্নামেন্ট, প্রথমটা বাংলাদেশের এবং দ্বিতীয়টা ভারতের। ফ্র‍্যাঞ্চাইজিভিত্তিক এই যে দুটো প্রতিযোগিতা, তা নামে এক ধরণের হলেও, অনেক ক্ষেত্রেই তাদের বিরাজ করে ভিন্নতা। জনপ্রিয়তার দিকটি হিসাব করলে চোখ বন্ধ করে বলে দেওয়া যায় যে, আইপিএল এগিয়ে রয়েছে বহু গুণে। আইপিএল দেখে শুরু করা

ঘরের মাঠে প্রথম ম্যাচেই ভাইকিংসদের হার

চট্টগ্রামে বিপিএল ৪ এর প্রথম ম্যাচেই ঘরের মাঠে ঢাকা ডায়নামাইটস এর কাছে ১৯ রানে হেরেছে চট্টগ্রাম ভাইকিংস। প্রথমে ব্যাট করে ঢাকা করে ১৪৮ রান। জবাবে ১২৯ রানেই শেষ হয় ভাইকিংসদের ব্যাটিং। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ম্যাচ শুরু হয় দুপুর ১টায়। শিশির সমস্যার প্রতিকার হিসেবেই এই পদক্ষেপ। টস এ জিতে চট্টগ্রাম অধিনায়ক

তোমার চিত্রনাট্য, কে লিখে দেয়?

ইয়ান বোথাম নিষেধাজ্ঞা থেকে ফিরেই একবার সেঞ্চুরি করেছিলেন। তখন তাকে কে যেন জিজ্ঞাসা করেছিলো, "তোমার চিত্রনাট্য কে লিখে দেয়?" সেই প্রশ্নটা সাকিব আল হাসান কেও করা যায়। বাংলাদেশ ক্রিকেটের বরপুত্র, বিশ্ব মানচিত্রে প্রথম দেখানো, আমরাও বিশ্বসেরা হই! তা একটা রেকর্ডের কথা সাকিব আল হাসানও হয়ত এত এত রেকর্ডের মধ্যে সযত্নে মনে রাখেন।

নতুন শুরুর সূচনাঃ বিপিএল ২০১২

নতুন শুরুর সূচনাঃ বিপিএল ২০১২

২০১২ বিপিএল এর কথা কি হিসাবে মনে আছে? ইঞ্জুরি ফেরত মাশরাফির অধিনায়ক হয়ে বিপিএল জয়ের? নাকি অতিমানব সাকিব আল হাসানের অতমানবিকতার পরও খুলনার সেমিফাইনালে হার? নাকি চিটাগাং কে টপকে বরিশালের সেই বিতর্কিত সেমিফাইনালে প্রবেশ? বিপিএল ২০১২ ছিলো ইতোমধ্যে দারুণ জনপ্রিয় হয়ে উঠা আইপিএল এর বাংলাদেশী সংস্করণ। নিলাম এর পর ঢাকায় গেলেন