মেলবোর্ন ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সাতকাহন

উপমহাদেশে ক্রিকেটকে অনেকটা ধর্মের পর্যায়ে নিয়ে গেছি আমরা। যেদিন বাংলাদেশের ম্যাচ থাকে, সবাই একবার হলেও স্কোরবোর্ডে চোখ বুলিয়ে নেই। ঢাকা বা চট্টগ্রামে খেলা হলে গ্যালারিতে একচুল পরিমাণ জায়গা খালি থাকে না। মাঠে গিয়ে খেলা দেখার যে অনুভূতি, টিভি পর্দায় সেই অনুভূতি লাভ করা কখনোই সম্ভব নয়। আসুন জেনে নেই, বিশ্বের সবচেয়ে

কিফি ঘূর্ণিতে বেসামাল ভারত!

অভিষেক হয়েছিলো ২০১৪ সালে পাকিস্তান এর বিপক্ষে দুবাইয়ে। তারপর খেলেছিলেন ৮ টি টেস্ট। নিয়েছিলেন মাত্র ১৪ উইকেট। গড় ও ছিলো ৩২ এর উপর। তাই ভারত টেস্ট শুরু হওয়ার আগে যে কেউই বলবে ও কিফি একজন অর্ডিনারি বোলার। কিন্তু কি হলো?? ২ ইনিংস ১২ উইকেট গড় ২০+ উইকেট সংখ্যা ২৬ খেলেছেন ৯ম্যাচ।

নতুন মাইলফলকে এবিডি।

আব্রাহাম বেঞ্জামিন ডিভিলিয়ার্স সংক্ষেপে এবিডি বলে ডাকে সবাই। সাউথ আফ্রিকার একজন বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান। যার নামে আছে দ্রুত ১০০ ও ১৫০ করার রেকর্ড সহ আরও অনেক রেকর্ড। তবে এবার তিনি নতুন করে করলেন আর একটি রেকর্ড আর সেটি হলো ওডিআই ক্রিকেটে দ্রুত ৯০০০ রান করার রেকর্ড। আগের রেকর্ড টা ছিলো ভারতীয় ব্যাটসম্যান

গোলাপ সুন্দর তবে কাটা হতে সাবধান

এক পাত্রে টাকা আর এক পাত্রে দেশ প্রেম রাখা হলো। ক্রিকেটারদের বলা হলো তোমরা যে কোনো একটা বেছে নেও। কেউ টাকা নেবে কেউ দেশপ্রেম। এটাই স্বাভাবিক। উদাহরণ চান?? এবারের কথাই বলি বেন স্টোকস তাকে আয়ারল্যান্ড সিরিজ থেকে সরিয়ে নেয়। কেনো? কারন শতভাগ ফিট থেকে আইপিএল খেলতে চান তাই। কারন সে এখান

পুনেতে ঘোর বিপদে ভারত

প্রথম টেস্ট, দ্বিতীয় দিনের সমাপ্তি। প্রথম দিনের ৯ উইকেটে ২৫৫ রান নিয়ে শেষ উইকেটে খেলতে মাঠে নামেন বিপদের কান্ডারি স্টার্ক ও সঙ্গ দেওয়া হাজলিউড। বোলার হিসেবে উভয়ের পরিচয় বহন করলে ও স্টার্কের অল রাউন্ডারিং নৈপুণ্যে আড়াইশ অতিক্রম করতে সক্ষম হয় অজিরা। স্টার্ক হাজলিউডকে নিয়ে প্রথম দিনেই করে ফেলেছিলেন ক্যারিয়ারের নবম

ফাইনাল ফ্রন্টিয়ার ফর ইন্ডিয়া!

বোর্ডার- গাভাস্কার ট্রফিটা এবার তাহলে ভারতই রেখে দিচ্ছে। দুশ্চিন্তা করো না ক্যাঙারু বাহিনী। পরের বার তোমরাই ঘরে নিবে এই ট্রফি। কি শুরু করলাম বলেন দেখি! এখনো সিরিজই শুরু হলো না, অথচ আমি এবারের ট্রফি তো ভারতের হাতে তুলে দিলামই, পরের আসরের বিজয়ীর নামও ঘোষণা করে দিলাম। রহস্য বৈকি। ১৯৯৬-৯৭ সাল থেকে শুরু

রমন লাম্বা; যিনি থাকবেন আজীবন শ্রদ্ধা এবং ভালোবাসায়।

২রা অক্টোবর, ১৯৮৬! তৎকালীন ভারতের প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধী গিয়েছিলেন রাজঘাট মহাত্মা গান্ধীর জন্ম তিথিতে সম্মান জানানোর জন্য। মহাত্মা গান্ধী স্মরণে আয়োজিত ভজন অনুষ্ঠানে রাজীব গান্ধীর উপর আততায়ীরা গুলি বর্ষণ করে। যদিও সেই গুলি লক্ষ্যভেদ করতে পারে নি প্রধানমন্ত্রীকে। এই ঘটনার পরে ভারতের প্রভাবশালী একটি ম্যাগাজিন কার্টুন ছাপায়। যেখানে দুই পুলিশ

শ্রীলঙ্কা সফরের টেষ্ট দল ও নির্বাচকদের ভাবনা

দেশের রত্ন মুস্তাফিজ। পেস বোলিংয়ে তাকে ছাড়া অসহায় যেন লাগছে দল বাংলাদেশকে। ইঞ্জুরির কারণে নিউজিল্যান্ড সিরিজ পুরপোরি খেলতে পারেননি "দ্যা ফিজ" খ্যাত মুস্তাফিজুর রহমান। কোন জয় ছাড়া সিরিজ হারল টাইগাররা। সদ্য সমাপ্ত ভারতের সাথে ঐতিহাসিক একমাত্র টেস্টে ও খেলেননি তিনি। নির্বাচকরা চাইলে ও নিজে থেকে 'না' করে দিয়েছিলেন ফিজ। ফেরাটা অপেক্ষার

পিছলে হাতে ফসকে যাওয়া টেস্ট!

বাংলাদেশ ভারতের হায়দ্রাবাদ টেস্টটা শুরুর আগে অনেক রোমাঞ্চ জাগালেও, ম্যাচটা ছিলো একপেশেই। শেষ পর্যন্ত ভারত ২০৮ রানে জয়ী, যেটা বিশাল ব্যাবধান। বাংলাদেশ যে লড়াই করেনি তা নয়, কিন্তু পিছলে হাত আর ব্যাটিং এ দায়িত্বহীনতায় টেস্টটা খোয়াতে হলো টাইগারদের। টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন ভারত অধিপতি ভিরাট কোহলি। প্রথম ওভারে তাসকিন

প্রসঙ্গঃ নাজমুল হাসান পাপন।

বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি ছয় মাস পর মেয়াদ শেষ হলে নতুন করে আর সভাপতি পদের জন্য নির্বাচন করবেন না। এই ঘোষনা আসার পর দেশের অনেক ক্রিকেট ফ্যান খুশি হয়েছেন। বিশেষ করে নাসির, বিজয়, নাফীসের ফ্যানরা। আমি নিজে শাহরিয়ার নাফীসের একজন বড় ফ্যান। তবে আমার মতে পাপন